জনগণ স্বৈরাচার সরকারকে লাল কার্ড দেখাতে বদ্ধপরিকর : রিজভী

41

বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব অ্যাডভোকেট রুহুল কবির রিজভী বলেছেন, দেশজুড়ে বিরোধী দল নিধনের কর্মসূচি থামছে না। গণমাধ্যমে নিয়ন্ত্রণ চলছে। কিন্তু সরকারের পরিকল্পনা ও নীলনকশা যেন অব্যাহত আছে গণতন্ত্রকে সম্পূর্ণভাবে দুমড়ে মুচড়ে ফেলার জন্য। তবে সরকারের বিদায় ঘণ্টা বেজে গেছে। জনগণ স্বৈরাচার সরকারকে লাল কার্ড দেখাতে বদ্ধপরিকর।

শুক্রবার সকালে রাজধানীর নয়াপল্টনে দলের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এ কথা জানান।

রিজভী বলেন, বর্তমান ভোটারবিহীন সরকার ক্ষমতা টিকিয়ে রাখার জন্য খুন, গুম ও গণগ্রেপ্তার অব্যাহত রেখেছে। বিএনপিসহ রাজনৈতিক দলগুলোর ক্ষমতা হরণ করা হয়েছে। কেড়ে নেওয়া হয়েছে সাধারণ মানুষের বাকস্বাধীনতা।

তিনি বলেন, বাংলাদেশে মত প্রকাশের স্বাধীনতা ক্রমেই সংকুচিত হচ্ছে। দেশটিজুড়ে বিচারবর্হিভূত হত্যা চলছেই। জাতিসংঘের পক্ষ থেকে অবিলম্বে বিচারবর্হিভুত হত্যা বন্ধের দাবি জানিয়েছেন।

খালেদা জিয়ার চিকিৎসা বিষয়ে তিনি বলেন, দিনের পর দিন চিকিৎসা না হওয়ার মস্তিষ্কে রক্তক্ষরণ ও স্ট্রোকের ঝুঁকিতে রয়েছেন খালেদা জিয়া। মেডিসিন বিশেজ্ঞ ডা. এম এম সিদ্দিকী এ কথা জানিয়েছেন। খালেদা জিয়ার বিশেষ ধরনের চিকিৎসায় যে এমআরআই করার প্রয়োজন হয়, তা কেবল ইউনাইটেড হাসপাতালেই রয়েছে বলে এম এম সিদ্দিকী জানিয়েছেন।

তিনি বলেন, গাজীপুরেও সরকার খুলনা মার্কা নির্বাচনের জন্যই পুলিশকে দিয়ে ধানের শীষের সমর্থক ভোটারদেরকে এলাকা ছাড়া করে সিটি কর্পোলেশন এলাকাকে শ্মশানভূমিতে পরিণত করা হচ্ছে-যাতে ভোটারবিহীন নির্বাচন সুচারোভাবে সম্পন্ন করা যায়।