সরকারি কর্মকর্তাদের নির্বাচনী কর্মকর্তা হিসেবে দাবি জাপা

0
21
জাতীয় পার্টি

কুড়িগ্রাম-৩ আসনের অনুষ্ঠিতব্য উপনির্বাচনে শুধু সরকারি কর্মকর্তাদের সহকারী প্রিসাইডিং অফিসার ও পোলিং অফিসার হিসেবে নিয়োগ দেয়া উচিত।

বললেন জাতীয় পার্টির মহাসচিব এ বি এম রুহুল আমিন হাওলাদার।

বুধবার (১৮ জুলাই) সকালে জাতীয় পার্টির একটি প্রতিনিধি দল রাজধানীর আগারগাঁওয়ে নির্বাচন ভবেনে প্রধান নির্বাচন কমিশনার কে এম নুরুল হুদার সঙ্গে দেখা করে এ দাবি জানান।

প্রধান নির্বাচন কমিশনারের সঙ্গে সাক্ষাৎ শেষে সাংবাদিকদের তিনি এসব কথা বলেন।

আগামী নির্বাচনে সহকারী প্রিসাইডিং অফিসার ও পোলিং এজেন্ট হিসেবে এমপিওভূক্ত ও আধাসরকারি স্কুলের শিক্ষকদের নিয়োগ দেওয়া হলে নির্বাচন সুষ্ঠু হবে না উল্লেখ করে রুহুল আমিন হাওলাদার বলেন, অধিকাংশ আধাসরকারী ও এমপিওভূক্ত স্কুলের সভাপতি হিসেবে রয়েছে আওয়ালী লীগের নেতারা। ফলে তাদের পক্ষে সুষ্ঠুভাবে নির্বাচন করা সম্ভব না।

রুহুল আমিন হাওলাদার বলেন, আগামী ২৫ জুলাই কুড়িগ্রাম-৩ আসনের উপনির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে। এ জন্য আমরা প্রধান নির্বাচন কশিশনারের সঙ্গে দেখা করে কিছু দাবি-দাওয়া তুলে ধরেছি। তিনি আমাদের নির্বাচন সুষ্ঠু হওয়ার ব্যাপারে আশাবাদ ব্যক্ত করেছেন।

এ ছাড়া আসন্ন বরিশাল সিটি করপোরেশন নির্বাচনে জাতীয় পার্টির প্রার্থী থাকায় নির্বাচন যাতে সুষ্ঠু হয় সে ব্যাপারেও নির্বাচন কমিশনারকে বলেছি, বলে জানান রুহুল আমিন হাওলাদার।

খুলনা ও গাজীপুর সিটি করপোরেশন নির্বাচন সুষ্ঠু হয়েছে কি-না এই প্রশ্নে তিনি বলেন, খুলনা ও গাজীপুরের নির্বাচন প্রত্যাশা অনুযায়ী হয়নি। আমার প্রত্যাশা আগামী নির্বাচন যাতে আরও ভালো হয়।

ভারতীয় হাইহমিশনার হর্ষ বর্ধন শ্রিংলার সঙ্গে জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যানসহ দলের একটি প্রতিনিধি দল সাক্ষাৎ করেছেন জানিয়ে তিনি বলেন, জাতীয় পার্টি এবং ভারত উভয়ে সুষ্ঠু নির্বাচন চায়। একই সঙ্গে তারা বিশ্বাস করে আগামী ‍নির্বাচন সুষ্ঠু হবে।

জাতীয় পার্টির মহাসচিব এ বি এম রুহুল আমিন হালদারের নেতৃত্বে দুই সদস্যের প্রতিনিধি দলের অপর সদস্য ছিলেন জিয়াউদ্দিন বাবলু।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here