ফুটবল বিশ্বের ধনী ১০ ক্লাব

0
154

ফুটবল বিশ্বের ধনী ১০ ক্লাব

মাঠের লড়াইয়ের বাইরেও আরেকটি লড়াই চলে ইউরোপিয়ান ফুটবল ক্লাবগুলোর। বিশ্বখ্যাত অর্থনৈতিক নিরীক্ষা প্রতিষ্ঠান ডেলোইট যেটার নাম দিয়েছে ‘ফুটবল মানি লিগ’। এই লিগে চলে টাকার খেলা। আর ২০১১-১২ মৌসুমের এই লিগে সবাইকে পেছনে ফেলেছে রিয়াল মাদ্রিদ। বার্ষিক আয়ের হিসাবে এই অর্থবছরেই রিয়াল প্রথমবারের মতো পেরিয়েছে ৫০০ মিলিয়ন ইউরোর মাইলফলক। রিয়ালের পরই আছে তাদের চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী বার্সেলোনা। স্প্যানিশ লিগের আর কোনো ক্লাব জায়গা করে নিতে পারেনি প্রথম দশটি ক্লাবের মধ্যে। এক আর দুইয়ে জায়গা পায়নি বটে, কিন্তু শীর্ষ দশ ধনী ক্লাবের তালিকায় ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগেরই আধিপত্য। সেরা দশের পাঁচটিই ইংলিশ ক্লাব। ইতালিয়ান লিগের দুটি ক্লাব আছে শীর্ষ ধনী ১০টি ক্লাবের মধ্যে। আর জার্মানি থেকে শুধু বায়ার্ন মিউনিখই স্থান পেয়েছে এই তালিকায়।
চলুন দেখে নিই বিশ্বের সেরা দশ ধনী ক্লাব, তাদের আয় এবং আয়ের উৎস। বার্ষিক আয়ের হিসাব দেওয়া হয়েছে বাংলাদেশি মুদ্রায়।

রিয়াল মাদ্রিদ (৫২৫৩ কোটি ৩২ লাখ টাকা)
ইউরোপিয়ান ফুটবলে ২০১১-১২ মৌসুমটা সত্যিই দারুণ কেটেছে রিয়াল মাদ্রিদের। প্রথমবারের মতো ১০০ পয়েন্টের রেকর্ড গড়ে জিতেছিল লা লিগার শিরোপা। চ্যাম্পিয়নস লিগেও গিয়েছিল সেমিফাইনাল পর্যন্ত।
ম্যাচের টিকিট বিক্রি থেকে আয়—১২৯৩ কোটি ৩৪ লাখ টাকা

সম্প্রচার স্বত্ব থেকে আয়—২০৪১ কোটি ৪৭ লাখ টাকা

বিজ্ঞাপন থেকে আয়—১৯১৮ কোটি ৪৯ লাখ টাকা

বার্সেলোনা (৪৯৪৯ কোটি ৯৬ লাখ টাকা)
ম্যাচের টিকিট বিক্রি থেকে আয়—১১৯১ কোটি ৮৮ লাখ টাকা

সম্প্রচার স্বত্ব থেকে আয়—১৮৪২ কোটি ৬৫ লাখ টাকা

বিজ্ঞাপন থেকে আয়—১৯১৫ কোটি ৪২ লাখ টাকা

ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড (৪০৫৭ কোটি ৩৩ লাখ টাকা)
ম্যাচের টিকিট বিক্রি থেকে আয়—১২৫০ কোটি ৩০ লাখ টাকা

সম্প্রচার স্বত্ব থেকে আয়—১৩১৬ কোটি ৯১ লাখ টাকা

বিজ্ঞাপন থেকে আয়—১৪৯০ কোটি ১১ লাখ টাকা

বায়ার্ন মিউনিখ (৩৭৭৫ কোটি ৫০ লাখ টাকা)
ম্যাচের টিকিট বিক্রি থেকে আয়—৮৭৫ কোটি ২১ লাখ টাকা

সম্প্রচার স্বত্ব থেকে আয়—৮৩৪ কোটি ২১ লাখ টাকা

বিজ্ঞাপন থেকে আয়—২০৬৬ কোটি ৭ লাখ টাকা

চেলসি (৩৩০৬ কোটি ১২ লাখ টাকা)
ম্যাচের টিকিট বিক্রি থেকে আয়—৯৮৪ কোটি ৮৬ লাখ টাকা

সম্প্রচার স্বত্ব থেকে আয়—১৪২৮ কোটি ৬২ লাখ টাকা

বিজ্ঞাপন থেকে আয়—৮৯২ কোটি ৬৩ লাখ টাকা

আর্সেনাল (২৯৭৫ কোটি ১০ লাখ টাকা)
ম্যাচের টিকিট বিক্রি থেকে আয়—১২০৬ কোটি ২৩ লাখ টাকা

সম্প্রচার স্বত্ব থেকে আয়—১১০৩ কোটি ৭৫ লাখ টাকা

বিজ্ঞাপন থেকে আয়—৬৬৫ কোটি ১১ লাখ

ম্যানচেস্টার সিটি (২৯২৬ কোটি ৯৩ লাখ টাকা)
ম্যাচের টিকিট বিক্রি থেকে আয়—৩৯০ কোটি ৪৬ লাখ টাকা

সম্প্রচার স্বত্ব থেকে আয়—১১১৭ কোটি ০৭ লাখ টাকা

বিজ্ঞাপন থেকে আয়—১৪১৯ কোটি ৪০ লাখ টাকা

এসি মিলান (২৬৩৩ কোটি ৮৩ লাখ টাকা)
ম্যাচের টিকিট বিক্রি থেকে আয়—৩৪৬ কোটি ৩৯ লাখ টাকা

সম্প্রচার স্বত্ব থেকে আয়—১২৯৪ কোটি ৩৭ লাখ টাকা

বিজ্ঞাপন থেকে আয়—৯৯২ কোটি ৪ লাখ টাকা

লিভারপুল (২৩৮৯ কোটি ৯২ লাখ)
ম্যাচের টিকিট বিক্রি থেকে আয়—৫৭২ কোটি ৮৮ লাখ টাকা

সম্প্রচার স্বত্ব থেকে আয়—৮০১ কোটি ৪২ লাখ টাকা

বিজ্ঞাপন থেকে আয়—১০১৫ কোটি ৬১ লাখ টাকা

জুভেন্টাস (২০০২ কোটি ৫৩ লাখ টাকা)
ম্যাচের টিকিট বিক্রি থেকে আয়—৩২৫ কোটি ৮৯ লাখ টাকা

সম্প্রচার স্বত্ব থেকে আয়—৯২৮ কোটি ৫০ লাখ টাকা

বিজ্ঞাপন থেকে আয়—৭৪৮ কোটি ১৩ লাখ টাকা

সূত্র: ডেলোইটডটকম