দল পরিচিতি: ভারতীয় জাতীয় কংগ্রেস

0
54

ভারতের বৃহত্তম রাজনৈতিক দল, ভারতীয় জাতীয় কংগ্রেস যা এখন কংগ্রেস পার্টি নামে পরিচিত৷

ভারতীয় জাতীয় কংগ্রেস ১৮৮৫ তে গঠিত হয়

প্রথম সভাপতি -উমেশ চন্দ্র বোনার্জী৷

স্বাধীন আন্দোলনে দেশকে নেতৃত্ব দেয়৷

স্বাধীনতা লাভের পর, গত ৬০ বছরের মধ্যে ৪৮ বছর ভারতে এই দলের শাসন৷

১৯১৫ সালে দক্ষিণ আফ্রিকা থেকে ফিরে, মহাত্মা গান্ধী কংগ্রেসকে নেতৃত্ব দিয়ে শুরু করেন, ‘‘ ইংরেজ ভারত ছাড়ো” এবং অসহযোগ আন্দোলন৷ অহিংসার প্রতীক হয়ে ওঠেন তিনি৷

মহাত্মা গান্ধীর মৃত্যুর পর, দল ও দেশের হাল ধরেন জহরলাল নেহেরু৷ তারপর লাল বাহাদুর শাস্ত্রী, ইন্দিরা গান্ধী হয়ে রাজীব গান্ধী৷

২০০৪ সালের নির্বাচনে, একক বৃহত্তম দল হিসেবে কংগ্রেসের নেতৃত্বে গঠিত হয়, বর্তমান জোট-সরকার৷

বর্তমানে ৭টি অঙ্গ রাজ্যে কংগ্রেস শাসন৷ ৪টি রাজ্যে কংগ্রেস জোট সরকার৷

কংগ্রেসের বর্তমান সভানেত্রী সোনিয়া গান্ধী৷

নির্বাচনী প্রতীক: হাত৷

নেতা পরিচিতি

সোনিয়া গান্ধী, কংগ্রেস সভানেত্রী

জন্ম ১৯৪৬এ, ইটালিতে৷

বিবাহ-পূর্ব নাম- সোনিয়া মাইনো৷

শিক্ষা ইটালী ও ব্রিটেনে৷

বিবাহ ইন্দিরা গান্ধীর বড় ছেলে রাজীব গান্ধীকে, ১৯৬৮তে৷

দুই সন্তান – পুত্র রাহুল গান্ধী, কন্যা প্রিয়াঙ্কা৷

১৯৬৮ ভারতীয় নাগরিকত্ব গ্রহণ৷

শুরুতে রাজনীতি এড়িয়ে চলেন৷ স্বামী রাজীব গান্ধী ‘৮৪তে প্রধানমন্ত্রীর হবার পর, জনসমক্ষে আসা শুরু৷

১৯৯১ রাজীব গান্ধী আত্মঘাতি সন্ত্রাসী হামলায় নিহত৷ ‘৯৬-এর নির্বাচনে কংগ্রেসের পরাজয়৷

১৯৯৭ দলকে পুনরুজ্জীবিত করতে কংগ্রেসের প্রাথমিক সদস্যপদ গ্রহণ৷

কংগ্রেস সভানেত্রী৷

১৯৯৯ কর্ণাটকের বেলারী ও উত্তর প্রদেশের আমেথী সংসদীয় কেন্দ্র থেকে নির্বাচিত৷

২০০৪ উত্তর প্রদেশের রায় বেরিলী সংসদীয় আসনে জয়লাভ৷

বর্তমানে কংগ্রেস সভানেত্রী ছাড়াও কেন্দ্রের জোট-সরকারের চেয়ার পার্সন৷

ড. মনমোহন সিং (ভারতের প্রথম শিখ প্রধানমন্ত্রী ও বর্তমান প্রধানমন্ত্রী)

জন্ম ১৯৩২ অবিভক্ত ভারতের পাঞ্জাব প্রদেশে, (বর্তমানে পাকিস্তানের অন্তর্ভুক্ত)

শিক্ষা পাঞ্জাব বিশ্ববিদ্যালয়ে৷

উচ্চতর শিক্ষা কেম্ব্রিজ ও অক্সফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয়ে৷

পেশা অর্থনীতিবিদ৷ কাজ করেছেন আন্তর্জাতিক মুদ্রা তহবিল ও জাতিসংঘের বিভিন্ন পদে৷

বিবাহিত৷ তিন সন্তানের জনক৷

১৯৭১ ভারত সরকারের অর্থনৈতিক উপদেষ্টা৷ তারপর অর্থমন্ত্রণালয়ের সচিব, পরিকল্পনা কমিশনের ডেপুটি চেয়্যারম্যান৷

১৯৮২-৮৬ ভারতীয় রিজার্ভ ব্যাঙ্কের গভর্ণর৷

১৯৯১-৯৬ ভারতের অর্থমন্ত্রী৷ আর্থিক সংস্কারের অগ্রদূত৷

১৯৯১ সংসদের উচ্চকক্ষ রাজ্যসভার সদস্য৷

১৯৯৪-২০০৪ রাজ্যসভায় বিরোধী দলের নেতা৷

২০০৪ নির্বাচনের পর কংগ্রেস নেতৃত্বাধীন জোট সরকারের প্রধানমন্ত্রী৷ বিশিষ্ট চিন্তাবিদ৷ বহু পুরস্কার ও উপাধিতে সম্মানিত৷

কংগ্রেসের নির্বাচনী ইস্তাহার-২০০৯

কর্ম-সংস্থান, গরীব ও প্রান্তিক কৃষিজীবিদের সুরক্ষা, খাদ্যে ভর্তুকি, সুদমুক্ত ঋণ, বিশ্ব মন্দাবস্থা সত্ত্বেও আর্থিক প্রবৃদ্ধির হার ৭% করার প্রতিশ্রুতি৷ তফসিলি জাতি, উপজাতি ও সংখ্যালঘুদের আর্থ-সামাজিক বিকাশ৷

তারিখ: ৩১ মার্চ ২০০৯